বাজারে না আসতেই শোরগোল ফেলে দিয়েছে দেশিও প্রতিষ্ঠান ওয়ালটনের নতুন ফোন। কিছুটা বড় ডিসপ্লের তিন ক্যামেরার নতুন স্মার্টফোন ফোনটির মডেলে ‘প্রিমো এন৪’।

করোনাভাইরাস মহামারির মধ্যে ঘরে বসেই মানুষ যাতে নতুন ফোনটি কিনতে পারেন সেজন্য অনলাইনে নেয়া হবে প্রি-অর্ডার।

প্রি-অর্ডারে থাকবে অফার।ওয়ালটন মোবাইল ফোনের হেড অব সেলস আসিফুর রহমান খান বলেন, চলতি সপ্তাহেই অনলাইনে ফোনটির প্রি-অর্ডার নেয়া হবে। যারা প্রি-অর্ডার দেবেন, তাদের জন্য থাকবে হোম ডেলিভারিসহ আকর্ষণীয় অফার।

ফোনটিতে রয়েছে ৩ জিবি র‍্যাম ও ৩২ জিবি রম এবং ৪ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি রমের দুটি সংস্করণ।

ডিভাইসটিতে ব্যবহার করা হয়েছে ৬.৫ ইঞ্চির ইন-সেল এইচডি প্লাস ১৯:৯ রেশিওর নচ আইপিএস ডিসপ্লে। পর্দার রেজ্যুলেশন ১৬০০ বাই ৭২০ পিক্সেল। রয়েছে ২.৫ডি কার্ভড গ্লাসও।অ্যান্ড্রয়েড ৯.০ পাই অপারেটিং সিস্টেমে পরিচালিত ফোনটির উচ্চগতি নিশ্চিত করতে থাকছে ২.০ গিগাহার্জ গতির অক্টাকোর এআরএম কোর্টেক্স-এ৫৩ প্রসেসর।

উন্নতমানের গেমিং ও স্পষ্ট ভিডিওর অভিজ্ঞতা দিতে গ্রাফিক্স হিসেবে ব্যবহৃত হয়েছে মালি-জি৭১ এমপি২।স্মার্টফোনটির পেছনে থাকছে এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ১৬, ৮ এবং ২ মেগাপিক্সেলের ট্রিপল অটোফোকাস ক্যামেরা। এফ ১.৮ অ্যাপারচার সমৃদ্ধ এই ক্যামেরায় ব্যবহৃত হয়েছে পিডিএএফ প্রযুক্তি। ১/৩.১ ইঞ্চি সেন্সরের ৫পি লেন্স সমৃদ্ধ ১৬ মেগাপিক্সেলের প্রধান কামেরা, ৬পি লেন্স সমৃদ্ধ ৮ মেগাপিক্সেলের সেকেন্ডারি ক্যামেরায় ১২০ ডিগ্রি ওয়াইড অ্যাঙ্গেলে ছবি তোলার সুবিধা। আর ২ মেগাপিক্সেলের তৃতীয় ক্যামেরা নিশ্চিত করবে ছবি ডেফথ অব ফিল্ড।

সেলফির জন্য সামনে থাকছে পিডিএএফ প্রযুক্তির ১৩ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা।

এছাড়াও স্মার্টফোনটিতে ৪ হাজার মিলিঅ্যাম্পিয়ারের লিথিয়াম পলিমার ব্যাটারি রয়েছে। ডুয়াল সিমের ফোরজি স্মার্টফোনটির সুরক্ষায় রয়েছে ফেইস আনলক এবং ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। কানেক্টিভিটির জন্য আছে ডুয়াল ব্যান্ড ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথ ভার্সন ৪, ইউএসবি ২, ওয়্যারলেস ডিসপ্লে, ল্যান হটস্পট, ওটিএ ও ওটিজি সুবিধা।

এতো কিছু হলেও ফোনটির দাম কিন্তু নির্ধারণ করেনি কর্তৃপক্ষ।

বন্ধুদের জানিয়ে দেন

আপনার মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here